বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ১১:৫৩ পূর্বাহ্ন
নোটিশ::
কক্সবাজার পোস্ট ডটকমে আপনাকে স্বাগতম..  

সৃষ্টিকর্মে বেঁচে আছেন উখিয়ার নুরুল ইসলাম চৌধুরী

সাঈদ মুহাম্মদ আনোয়ার :
আপডেট: বৃহস্পতিবার, ৯ মে, ২০২৪

কক্সবাজার জেলার উখিয়া উপজেলায় মানুষের হৃদয়ে সৃষ্টিকর্মে বেঁচে আছেন বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুল ইসলাম চৌধুরী (ঠান্ডা মিয়া চৌধুরী)। স্বাধীনতা যুদ্ধে অংশগ্রহণে রয়েছে সাহসী ভূমিকা ও অনবদ্য অবদান। শিক্ষাদানে রয়েছেন পথিকৃত হয়ে।

জীবদ্দশায় তিনি ধারণ করেছেন দেশ ও মানুষের প্রতিচ্ছবি। নিজ এলাকার মানুষদের কল্যাণে নিবেদিত ছিলেন। আত্মমর্যাদা, সুশিক্ষা ও সৃজনশীলতায় ছিলেন অন্যরকম দৃষ্টান্ত। শত বাস্তবায়তার মধ্যে পরিচয় দিয়েছেন সততা ও সাধুতার। যত দিন বেঁচে ছিলেন শিক্ষার আলো ছড়িয়েছেন গ্রামান্তরে। তিনি ইতিমধ্যে পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে চলে গেছেন পরকালে। কিন্তু তিনি রেখে গেছেন অসংখ্য স্মৃতি।

মরহুম নুরুল ইসলাম চৌধুরী চৌধুরী ও তার পরিবার কর্তৃক আগামী প্রজন্মের জন্য অসংখ্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছে। যেসব প্রতিষ্ঠান উখিয়ায় আলো ছড়াচ্ছেন। এর মধ্যে উল্লেখ্য যোগ্য হলো বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব সরকারি মহিলা কলেজ, বীর মুক্তিযোদ্ধা নূরুল ইসলাম চৌধুরি টেকনিক্যাল বিএম স্কুল এন্ড কলেজ, বীর মুক্তিযোদ্ধা নূরুল ইসলাম চৌধুরি -গুলজার বেগম উচ্চ বিদ্যালয়, বীর মুক্তিযোদ্ধা নূরুল ইসলাম চৌধুরি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ফলিয়া পাড়া আলিমুদ্দি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরি প্রাথমিক বিদ্যালয়,আবদুর রহমান বদি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়,গুলজার বেগম প্রাথমিক বিদ্যালয়।এছাড়াও হেফজখানা, মক্তব সহ আরও অনেক প্রতিষ্টান রয়েছে।

নুরুল ইসলাম চৌধুরী (ঠান্ডা মিয়া) এর জন্ম উখিয়ার রাজাপালং ইউনিয়নের ফলিয়া পাড়ায়। পেশা তিনি একজন শিক্ষক ছিলেন। পরে তিনি সরাসরি রাজনীতিতে জড়িয়ে পড়েন। একজন নীতিবান সমাজ সেবক, আদর্শ শিক্ষক ও মুক্তিযোদ্ধা ছিলেন। নুরুল ইসলাম চৌধুরী রাজাপালং ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও উখিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ছিলেন। তার ২ মেয়ের জামাই সাবেক সংসদ সদস্য। নুরুল ইসলাম চৌধুরীর বড় মেয়ে স্বামী হলেন মহেশখালী-কুতুবদিয়ার সাবেক সংসদ সদস্য আলমগীর মোহাম্মদ মাহফুজল্লাহ ফরিদ। তিনি টানা ২ বার সংসদ সদস্য ছিলেন। ছোট মেয়ের জামাই হলেন সাবেক সংসদ সদস্য আবদুর রহমান বদি। যিনি উখিয়া-টেনকনাফের উন্নয়নের রুপকার। তিনিও উখিয়া টেকনাফ আসনের ২ বারের সংসদ সদস্য ছিলেন। আবদুর রহমান বদির স্ত্রী (নুরুল ইসলাম চৌধুরীর ছোট মেয়ে) শাহিন আক্তারও টানা ২ বারের বর্তমান সংসদ সদস্য। বাংলাদেশের ইতিহাসে স্বামী-স্ত্রী টানা ৪ বার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার ঘটনার এই প্রথম। অর্থাৎ : নুরুল ইসলাম চৌধুরীর পরিবারেরই সাবেক ও বর্তমান মিলিয়ে তিন তিন জন সংসদ সদস্য। নুরুল ইসলাম চৌধুরী বড় ছেলে অধ্যাপক হুমায়ুন কবির চৌধুরী। তিনি কক্সবাজার জেলা পরিষদের বর্তমান সদস্য। ছোট ছেলে জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী রাজাপালং ইউনিয়ন পরিষদের টানা তিন বারের চেয়ারম্যান। পাশাপাশি জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী একযুগের বেশি সময় ধরে উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান সভাপতির দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন। জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী একাদশ ও দ্বাদশ জতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশীদের মধ্যে অন্যতম একজন ছিলেন। নুরুল ইসলাম চৌধুরীর ছোট ভাই অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী উখিয়া উপজেলা পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান। নুরুল ইসলাম চৌধুরীর ছোট ভাইয়ের স্ত্রী ছেনুয়ারা বেগমও উখিয়া উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান ছিলেন। এই আলোকিত পরিবারে সম্প্রতি উখিয়া উপজেলার অভিভাবক পদটিও সংযোজন হতে যাচ্ছে!


আরো খবর: