কক্সবাজারের টেকনাফে শাপলাপুরে সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত্যা মামলার পলাতক আসামি কনস্টেবল সাগর দেব আদালতে আত্মসমর্পণ করেছেন।

বৃহস্পতিবার (২৪ জুন) দুপুরে কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ ইসমাঈলের আদালতে দীর্ঘ ১০মাস আত্মগোপনে থাকার পর তিনি আত্মসমর্পণ করেছেন। শুনানি শেষে তাঁর জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন আদালত।

কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) ফরিদুল আলম বলেন এই তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ঘটনার পর দীর্ঘ ১০ মাস টেকনাফ থানার সাবেক পুলিশের কনস্টেবল সাগর দেব পলাতক ছিলেন। অনেক খোঁজাখুঁজির পরও তার সন্ধান পায়নি তদন্তকারী সংস্থা র‌্যাব।

পিপি ফরিদুল আলম বলেন, আত্মসমর্পণের পর তিনি আইনজীবির মাধ্যমে জামিনের আবেদন করেছেন। আবেদনের শুনানি আদেশের অপেক্ষায় রেখেছেন বিজ্ঞ বিচারক। অন্যদিকে গত ১০ জুন প্রদীপের আইনজীবী অ্যাডভোকেট মহিউদ্দিন তাঁর জামিন আবেদন করেন। এর একদিন আগে ৯ জুন তাঁর আইনজীবী নন্দ দুলালের জামিন আবেদন করেন। ১৩জুন দুপুরে কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোহাম্মদ ইসমাঈলের আদালত তাদের আবেদন শুনানি চলতি মাসের ২৭ জুন নির্ধারণ করেছেন।

আলোচিত মেজর সিনহা হত্যা মামলায় ২০২০ সালের ১৩ ডিসেম্বর ওসি প্রদীপ কুমার দাসসহ ১৫ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দিয়েছেন তদন্ত কর্মকর্তা র‌্যাব-১৫ এর সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মো. খায়রুল ইসলাম।

ওই বছরের ৩১ জুলাই রাতে কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া ইউনিয়নের শামলাপুর চেকপোস্টে গাড়ি তল্লাশিকে কেন্দ্র করে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাখেদ খান।

এ ঘটনায় গত ৫ আগস্ট নিহত সিনহার বোন শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌস বাদী হয়েছে বাহারছড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের সাবেক ইনচার্জ পরিদর্শক লিয়াকত আলীকে প্রধান আসামি করে টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশসহ ৯ জন পুলিশ সদস্যকে আসামি করা হয়। আদালত মামলাটির তদন্ত করার আদেশ দেন র‌্যাবকে।

এরপর গত ৬ আগস্ট প্রধান আসামি লিয়াকত আলী ও টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশসহ ৭ পুলিশ সদস্য আদালতে আত্মসমর্পণ করেন।

এই জাতীয় আরো খবর::

সম্পাদক: সাঈদ মোহাম্মদ আনোয়ার

নির্বাহী সম্পাদক: ফারুক আহমদ
মোবাইল: ০১৮৫৭-৭৩৫৭৩৫
ইমেইল: coxsbazarpost24@gmail.com


কক্সবাজার অফিস: হোটেল তাজসেবা, ২য় তলা,সদর থানার পিছনের সড়ক, পৌরসভার রেষ্ট হাউজ সংলগ্ন, কক্সবাজার।
উখিয়া অফিস: ফরিদ ম্যানশন (১ম তলা), মসজিদ রোড়, কোটবাজার, উখিয়া।
রামু অফিস: এন আমিন প্লাজা (২য় তলা), ফুটবল চত্বর, রামু বাইপাস, রামু।