বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ০৫:১৮ অপরাহ্ন
নোটিশ::
কক্সবাজার পোস্ট ডটকমে আপনাকে স্বাগতম..  

তুরস্ককে যেকোনো সহায়তায় প্রস্তুত যুক্তরাষ্ট্র

প্রতিবেদকের নাম:
আপডেট: সোমবার, ৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩

একের পর এক শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হেনেছে তুরস্কে। প্রথম শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হানার দুই ঘণ্টার মধ্যে অন্তত ৪২টি আফটারশক হয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির অভ্যন্তরীণ দুর্যোগ ও জরুরি ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়। এতে রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত তুরস্ক ও প্রতিবেশি সিরিয়ায় দুই শতাধিক প্রাণহানি ও এক হাজারের বেশি আহত হয়েছে বলে জানা গেছে।

এদিকে, ভূমিকম্পে বিধ্বস্ত তুরস্কে উদ্ধার তৎপরতায় সহায়তার নির্দেশ দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।
একই সঙ্গে ভয়াবহ এই ভূমিকম্পের ঘটনায় গভীর উদ্বেগের কথাও জানিয়েছে দেশটি।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জ্যাক সুলিভান এ তথ্য জানিয়েছেন।
তিনি বলেছেন, তুরস্কে উদ্ধার তৎপরতায় সহায়তার জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের আন্তর্জাতিক উন্নযন সংস্থাকে তাৎক্ষণিক নির্দেশ দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।
তিনি আরও বলেন, “আমি ইতোমধ্যে তুরস্কের কর্মকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি এবং জানিয়েছি- আমরা সমস্ত প্রয়োজনীয় সহায়তা প্রদানের জন্য প্রস্তুত আছি। আমরা তুরস্কের সাথে সমন্বয় করে পরিস্থিতি নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করতে থাকব।”

জানা গেছে, স্থানীয় সময় সোমবার ভোরে দেশটির দক্ষিণাঞ্চলীয় কাহরামানমারাস প্রদেশে এই ভূমিকম্প আঘাত হানে।

সংবাদমাধ্যম সিএনএন জানিয়েছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ভূতাত্ত্বিক জরিপের (ইউএসজিএস) তথ্যানুযায়ী, ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ৭.৮ এবং এর উৎসস্থল ছিল দক্ষিণ তুরস্কের গাজিয়ানটেপ প্রদেশের পূর্ব দিকে নুরদাগি শহর থেকে ২৬ কিলোমিটার পূর্বে ভূগর্ভের প্রায় ২৪.১ কিলোমিটার গভীরে।

তবে তুরস্কের সংবাদমাধ্যম আনাদোলু এজেন্সি জানিয়েছে, তুরস্কের দুর্যোগ ও জরুরি ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ দাবি করেছে, সোমবার স্থানীয় সময় ভোর ৪টা ১৭ মিনিটে আঘাত হানা ওই ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ৭.৪ এবং উৎপত্তিস্থল ছিল পাজারচিক জেলায়। এটি ঘটে ৭ কিলোমিটার গভীরে।

আনাদোলু এজেন্সির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, দিয়ারবাকির ও গাজিয়ানটেপসহ অন্যান্য দক্ষিণ-পূর্ব প্রদেশ এবং লেবানন ও সিরিয়া, সাইপ্রাসসহ প্রতিবেশী দেশগুলোতেও এই ভূকম্পন অনুভূত হয়েছে।

আবহাওয়াবিদদের মতে, শক্তিশালী ভূমিকম্পের পরে আফটারশকগুলো কয়েক ঘণ্টা এবং এমনকি কয়েক দিনও অব্যাহত থাকতে পারে।

এদিকে, সিরিয়ায় এই ভূমিকম্পে কমপক্ষে ১১১ জন নিহত ও পাঁচ শতাধিক আহত হয়েছে বলে জানিয়েছে সিএনএন। তুর্কি সীমান্তবর্তী আলেপ্পো, লাটাকিয়া, হামা ও টারতুস এলাকায় এসব হতাহতের ঘটনা ঘটেছে। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে সিরিয়ার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন।

সূত্র: বিডি প্রতিদিন


আরো খবর: