শিরোনাম ::
উখিয়া উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে আনুষ্ঠানিক ভাবে প্রার্থীতা ঘোষণা করেছেন সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মিন্টু পেকুয়ায় বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ করে কিশোরীর ভিডিও ধারণ, যুবক আটক পেকুয়ায় হাসপাতালে নবজাতক সন্তান রেখে পালিয়ে গেলেন মা বাংলাদেশে ঢুকল মিয়ানমারের আরও ৪৬ বিজিপি সদস্য মহেশখালীতে র‍্যাব ও পুলিশের অভিযান, ৭ টি আগ্নেয়াস্ত্রসহ গ্রেপ্তার ৪ পেকুয়ার মানুষের সেবা করতেই ছুটে এসেছি- ড. সজীব বাইক দুর্ঘটনায় রামুর পোল্ট্রি ব্যবসায়ী নিহত কক্সবাজারে হোটেলের সুইমিংপুলের পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু চকরিয়ায় বাড়ি থেকে ঢেকে নিয়ে মেম্বার প্রার্থীকে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা পেকুয়ায় রেঞ্জ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে পাহাড়ের জব্দকৃত বালু বিক্রির অভিযোগ
বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:২৬ পূর্বাহ্ন
নোটিশ::
কক্সবাজার পোস্ট ডটকমে আপনাকে স্বাগতম..  

চকরিয়ায় হাতঘড়ি মার্কার নির্বাচনী অফিসে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ২০ জনের বিরুদ্ধে মামলা

প্রতিবেদকের নাম:
আপডেট: মঙ্গলবার, ২ জানুয়ারি, ২০২৪

নিজস্ব প্রতিবেদক,চকরিয়া::

কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার কৈয়ারবিল ইউনিয়নে এমপি পদপ্রার্থী বাংলাদেশ কল্যাণ পাটির চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ মোহাম্মদ ইবরাহিম তথা হাতঘড়ি মার্কার নির্বাচনী অফিসে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ২০ জনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। বাংলাদেশ কল্যাণ পাটির দপ্তর সম্পাদক আল আমিন ভুঁইয়া রিপন বাদি হয়ে সোমবার রাতে চকরিয়া থানায় মামলাটি রুজু করেছেন।

মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চকরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ আলী। তিনি বলেন, মামলার এজাহারে ৫ জনের নাম উল্লেখপূর্বক আরও ১৮-২০ জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে। এ মামলায় এক নম্বর আসামি করা হয়েছে চকরিয়া উপজেলার কৈয়ারবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মক্কী ইকবাল হোসেনকে।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, গত ২৫ ডিসেম্বর চকরিয়া উপজেলার কৈয়ারবিল ইউনিয়নের খোজাখালী বাংলাপাড়া স্টেশন এলাকায় আব্বাছ আহমদ নামের একজনের মালিকানাধীন একটি দোকারঘর হাতঘড়ি প্রতিকের নির্বাচনী অফিস হিসেবে ভাড়া নেয়া হয়।

প্রতিদিনের মতো রোববার রাতে ওই নির্বাচনী অফিস বন্ধ করে কর্মী সমর্থকরা বাড়ি চলে যায়। এরইমধ্যে দিবাগত রাত দুইটার দিকে কে বা কারা নির্বাচনী অফিসে আগুন দিয়ে সটকে পড়ে। এতে নির্বাচনী অফিস ও পাশের একটি সার-কীটনাশক দোকান পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

কৈয়ারবিল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মক্কী ইকবাল হোসেন দাবি করেন, কতিপয় চক্র উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে আমাকে এবং স্বতন্ত্র এমপি পদপ্রার্থী জাফর আলমের ট্রাক গাড়ি মার্কার কর্মী সমর্থককে মামলায় জড়াতে কৌশলে অগ্নিকান্ডের এই ঘটনা তৈরি করেছে।

তিনি বলেন, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের শুরুতে আমরা এইধরনের ঘটনা হবে আগে থেকে বুঝতে করতে পেরে বর্তমান এমপি জাফর আলমের পক্ষে মাঠে থাকা জনপ্রতিনিধিরা নির্বাচন কমিশনে লিখিত অভিযোগ জমা দিয়েছি। তারপরও এইধরনের সাজানো ঘটনায় আমাকে জড়িয়ে পরিকল্পিত ভাবে মামলায় আসামি করা হয়েছে। ##


আরো খবর: