রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৬:৪৮ পূর্বাহ্ন
নোটিশ::
কক্সবাজার পোস্ট ডটকমে আপনাকে স্বাগতম..  

উখিয়া থেকে ঢাকায় বাসযোগে ইয়াবার চালান নিয়ে রোহিঙ্গা নারী আটক

প্রতিবেদকের নাম:
আপডেট: রবিবার, ১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২২

ইয়াবাসহ র‌্যাবের হাতে ধরা পড়লেন রোহিঙ্গা নারী
কক্সবাজারের উখিয়া থেকে ঢাকায় বাসযোগে ইয়াবার চালান নিয়ে এসেছিলেন কুতুপালং ক্যাম্পের রেজিস্টার্ড রোহিঙ্গা নারী সেনোয়ারা বেগম (২২)। রাজধানীর সায়েদাবাদ ও ভৈরবে ৪ হাজার ২৫০ পিসের ওই চালান পৌঁছে দেওয়ার কথা ছিল তার।

তবে র‌্যাবের গোয়েন্দা জালে ঢাকার অদূরে নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ এলাকায় ধরা পড়েন তিনি।

শনিবার (১২ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় ৪ হাজার ২৫০ পিস ইয়াবাসহ ওই নারী রোহিঙ্গা মাদক কারবারিকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব-৩ এর একটি দল।

রোববার দুপুরে (১৩ ফেব্রুয়ারি) র‌্যাব-৩ স্টাফ অফিসার (মিডিয়া) সহকারী পুলিশ সুপার ফারজানা হক ঢাকা পোস্টকে বলেন, র‌্যাব-৩ গোয়েন্দা সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারে, একজন মাদক কারবারি একটি বাসে করে কুমিল্লা থেকে কাঁচপুর ব্রিজ হয়ে ঢাকা অভিমুখে ইয়াবার চালান নিয়ে আসছেন।

ওই সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৩ এর একটি দল শনিবার সন্ধ্যায় নারায়ণগঞ্জ জেলার সিদ্ধিরগঞ্জ থানা এলাকায় একটি বিশেষ চেকপোস্ট স্থাপন ও তল্লাশির মাধ্যমে অভিযান পরিচালনা করে মাদক কারবারি সেনোয়ারা বেগমকে গ্রেপ্তার করে।

তিনি রোহিঙ্গা নাগরিক। কক্সবাজারের উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের রেজিস্ট্রার্ডভুক্ত সদস্য। তার বাবার নাম মৃত আলী আহম্মদ। তিনি শরীরে বিশেষ কায়দায় ইয়াবার চালান নিয়ে যাচ্ছিলেন। নারী র‌্যাব সদস্য দ্বারা তল্লাশি করে ওই ইয়াবা জব্দ করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তার সেনোয়ারা বেগম জানিয়েছেন, তিনি এবারই প্রথম ইয়াবার চালান নিয়ে এসেছিলেন। তবে র‌্যাবের গোয়েন্দা তথ্য মতে, তিনি দীর্ঘদিন ধরে কক্সবাজার ও নোয়াখালী থেকে ইয়াবা নিয়ে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা এলাকাসহ নারায়ণগঞ্জ জেলা ও ঢাকা মহানগরীর বিভিন্ন স্থানে মাদকসেবীদের নিকট বিক্রয় করতেন।

অভিযানে অংশ নেওয়া র‌্যাব-৩ এর এক কর্মকর্তা জানান, তিনি এর আগেও ইয়াবার চালান নিয়ে এসেছিলেন। এবার দুটো স্থানে দুইভাগে ওই ইয়াবার চালান পৌঁছে দেওয়ার কথা ছিল। রাজধানীর সায়দাবাদ ও ভৈরবে। সায়েদাবাদে পৌঁছার আগেই তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।


আরো খবর: