শিরোনাম ::
উখিয়ায় মাদক প্রতিরোধ ও অপরাধ দমনে কমিউনিটি পুলিশিং সমাবেশ অনুষ্ঠিত একসঙ্গে ৪ সন্তান জন্ম দিলেন মহেশখালীর এক গৃহবধূ! বান্দরবানের দুর্গম অঞ্চলে ঝরে পড়া শিশুদের জন্য উদ্বোধন শিশু প্রতিভা বিকাশ কেন্দ্রের বান্দরবান দুই শতাধিক প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর মাঝে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প উখিয়ায় পালস’র উদ্যোগে বিশ্ব শান্তি দিবস পালিত সীমান্তে গুলির শব্দ থামছে না উখিয়ায় প্রশাসনের অভিযানে ৩টি ড্রেজার মেশিন ও ২টি বন্দুকসহ অস্ত্র উদ্ধার রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আবারো খুন মুক্তি কক্সবাজার-এর উদ্যোগে ব্যবসায়ী ও উপকারভোগীদের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত পালস-এর উদ্যোগে “বর্ণবাদ-শান্তি ও সম্প্রীতির অন্তরায়” বিষয়ক বির্তক প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত
সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৯:০২ পূর্বাহ্ন
নোটিশ::
কক্সবাজার পোস্ট ডটকমে আপনাকে স্বাগতম..

১৭বছরের সাজা নিয়ে ১৮বছর পলাতক,অতঃপর গ্রেফতার!

ডেস্ক নিউজ
আপডেট: মঙ্গলবার, ১৫ মার্চ, ২০২২

অস্ত্র ও ডাকাতি মামলায় মুন্সিগঞ্জের টঙ্গীবাড়ী এলাকার মারুফ হোসেন ইকবালের সাজা হয়েছিলো ১৭ বছর। সে সাজা এড়াতে তিনি পালিয়ে ছিলেন ১৮ বছর, পরিবর্তন করেছিলেন নাম, ঠিকানা।

তবে শেষ রক্ষা হয়নি। ১৮ বছর পলাতক থাকার পর অবশেষে তাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার (১৪ মার্চ) দিবাগত রাতে ঢাকার কলতাবাজার এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতারের পর মঙ্গলবার (১৫ মার্চ) দুপুর ১২ টার দিকে তাকে মুন্সিগঞ্জ আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে বলে জানা গেছে। আটককৃত ইকবাল উপজেলার ধীপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আবুল হোসেনের ছেলে।

এ বিষয়ে টঙ্গিবাড়ী থানা এসআই আল মামুন জানান, ময়মনসিংহ জেলায় একটি ডাকাতির ঘটনায় ২০০৪ সালে অস্ত্র ও ডাকাতির মামলা হয় ইকবালের বিরুদ্ধে। মামলার পর থেকেই আত্মগোপনে ছিল ইকবাল। এরমধ্যেই ২০০৬ সালে ওই মামলার রায়ে ইকবালকে ১৭ বছরের সাজা দেয় আদালত। সাজা এড়াতেই গত ১৮ বছর ধরে পালিয়ে বেড়াচ্ছিল ইকবাল।

এসআই আল মামুন আরও জানান, গত একবছর যাবত তাকে গ্রেফতারের জন্য চেষ্টা চালাচ্ছিলাম, তবে খুঁজে পাচ্ছিলাম না। এনআইডি কার্ডের নাম, ঠিকানাও পরিবর্তন করে ফেলেছিলো সে। পরে তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তা অনুসন্ধান চালিয়ে তার অবস্থান নিশ্চিত হই। সোমবার রাতে অভিযান চালিয়ে ঢাকার কলতাবাজার থেকে তাকে আটক করতে সক্ষম হই। মঙ্গলবার দুপুরে মুন্সিগঞ্জ আদালতে তাকে সোপর্দ করা হয়েছে বলে জানান তিনি।
যমুনা টিভি অনলাইন


আরো খবর: