শিরোনাম :
আর্থিক সমস্যা দূর করে ফুটবলকে এগিয়ে নেয়ার চেষ্টা করব: মানিক সৌদি পাঠাতে আরও ২টি বিশেষ ফ্লাইটের ঘোষণা দিল বিমান অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমের জানাজা অনুষ্ঠিত কৃষিবিল নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বিরোধীদের বিরুদ্ধে আক্রমণ শানালেন এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে ধর্ষণকাণ্ডে এবার ছাত্রলীগ নেতা মাহফুজ গ্রেফতার আজও রাস্তায় সৌদি প্রবাসীরা কৃষি জমিতে নয়, অর্থনৈতিক অঞ্চলে শিল্পকারখানা করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী করোনায় আক্রান্ত ভারতের উপরাষ্ট্রপতি বেঙ্কাইয়া নাইডু নাটক দিয়ে ফিরছেনমৌসুমী বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও স্বপ্ন বাস্তবায়নে নিরলস কাজ করছেন প্রধানমন্ত্রী: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৬:৩৪ পূর্বাহ্ন

হাটহাজারীতে ছয় বছরের শিশুকে বলৎকার : মোবাইল কোর্টে মাধ্যমে কারাদন্ড প্রদান

প্রতিবেদকের নাম::

প্রকাশ: জুন ২১, ২০১৮ ১১:২৯ পূর্বাহ্ণ | সম্পাদনা: জুন ২১, ২০১৮ ১১:২৯ পূর্বাহ্ণ

সুমন পল্লব, হাটহাজারী ::

বৃহস্পতিবার (২১জুন) হাটহাজারীতে ছয় বছরের শিশুকে বলাৎকারের অভিযোগে মাসুম বিল্লাহ( ২৬) নামে এক কোরান হাফেজকে মোবাইল কোর্টে মাধ্যমে কারাদন্ড প্রদান করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আক্তারউন নেছা শিউলি।

সুত্রে জানা যায়, দন্ডপ্রাপ্ত আসামী সকাল ৯টার দিকে ৬বছরের একটি বাচ্চাকে একা পেয়ে চকলেট কিনে দেয়ার কথা বলে রুমে নিয়ে বলৎকার করে, পরে বাচ্চাটির পরিবার জানতে পেরে তাকে আটক করে নির্বাহী অফিসারকে জানালে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে ভিকটিমের সাক্ষ্য ও অভিযুক্তের স্বীকারোক্তিনুযায়ী ঘটনার সত্যতা পেয়ে ৩মাসের কারাদন্ড প্রদান করেন।

ভিকটিমের মামা (নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক) উপজেলা অফিসে প্রতিবেদককে জানান, পরিবারের সবার অজান্তে ভাগিনাকে চকলেট দেয়ার কথা বলে ফুঁসলিয়ে তার রুমে নিয়ে বলৎকার করে, পরে আমাকে দেখেই ঘটনাটি খুলে বলায় বাচ্চাকে নিয়ে ঐ রুমে গেলে তালাবন্ধ পেয়ে রাস্তায় আসতেই ঐ কুলাঙ্গারকে আমার ভাগিনা দেখিয়ে দেয় পরে স্থানীয়রা উত্তম-মধ্যম দিয়ে তাকে আটক করে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মহোদয়কে খবর দিলে উনি তাৎক্ষনিক কারাদন্ড প্রদান করে পুলিশের হাতে তুলে দেন।

দন্ডপ্রাপ্ত মাছুম বিল্লাহ খুলনা জেলার ডুমুরিয়া থানার সরদার বাড়ির মোঃ অালতাফ সরদারের পুত্র। বর্তমানে সে একজন পেশাদার রিকশা চালক। হাটহাজারীর এগার মাইল এলাকায় কবির চেয়ারম্যানের ভাড়াঘরে থাকে বলে জানা যায়। দু বছর আগে পার্শ্ববর্তী এলাকার একটি মেয়ের সাথে সামাজিকভাবে বিয়ে হয় তার ঘরে ৫মাসের একটি বাচ্চা আছে বলে জানায় মাছুম বিল্লাহ, কুরআনে হাফেজ হওয়ার পর স্থানীয় একটি মাদ্রাসায় কিছুদিন লেখাপড়া করে এখন রিকশা চালায়, ঘটনাটি স্বীকার করে ভুল করেছে বলে জানায় প্রতিবেদককে।

নির্বাহী অফিসার আক্তার উননেছা শিউলী বলেন ঘটনাটি শুনেই আমি ঘটনাস্থলে গিয়ে সাক্ষ্যপ্রমাণ এবং দন্ডপ্রাপ্তের স্বীকারোক্তি পেয়ে আইনানুযায়ী তাকে তিনমাসের কারাদন্ড প্রদান করেন।

কক্সবাজার পোস্ট.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কক্সবাজার পোস্ট সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ
এই জাতীয় আরো খবর::