তারিখ: শনিবার, ২১শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং, ৬ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম

Share:

মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম, লামা ::

লামার আজিজনগরে ভূমি বিরোধের জেরে গরুর ঘাস খাওয়াকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের রক্তক্ষয়ি সংঘর্ষ হয়েছে। সংঘর্ষে নুরুল ইসলামের পক্ষের ৪ জন গুরুতর আহত হয়েছে। বুধবার (০৫ জুন) দুপুর ২টায় আজিজনগর ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের বাছুরি পাড়ায় এই সংঘর্ষ ঘটে।
আহতরা হল, মানছুরা বেগম (৪৫) স্বামী- আব্দুর রহমান, নুরুল ইসলাম (২৫) পিতা- আব্দুর রহমান, মারুফা খাতুন (২০) পিতা- আব্দুর রহমান ও আব্দুর রহমান (৫০) পিতা- মৃত আব্দুর করিম। সকলের বাড়ি ইউনিয়নের বাছুরি পাড়ায়।

জানা যায়, দীর্ঘ দিন যাবৎ উভয়ের মধ্যে জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। বুধবার উভয়ের জমিনের সীমানায় গরুর ঘাস খাওয়াকে কেন্দ্র করে তুমুল বাকবিতন্ডা হয় নুরুল ইসলাম ও আব্দুল করিম পক্ষের মাঝে । ঝগড়ার এক পর্যায়ে দেশীয় অস্ত্র ও লাঠি সোটা নিয়ে হামলা করে আব্দুল করিম পক্ষের লোকজন। এসময় ৪ জন আহত হয়। আহতদের মধ্যে মানছুরা বেগম ও নুরুল ইসলামের অবস্থা আশংকাজনক। তাদেরকে পাশর্^বর্তী লোহাগাড়া উপজেলার পদুয়া সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য পাঠানো হলে ডাক্তার তাদের অবস্থা আশংকাজনক দেখে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করেন।

আহত আব্দুর রহমান বলেন, হামলাকারীরা হল, আব্দুর করিম (৪৬) পিতা- আবুল কাশেম, মো. ইউছুপ (২৬) পিতা- আব্দুর করিম, মো. মুছা (২৩) পিতা- আব্দুর করিম, মনসুরা (৩৬) স্বামী- আব্দুর করিম। তারা একই এলাকার বাসিন্দা।

এদিকে ঘটনাস্থল থেকে পালানোর সময় আব্দুল করিমকে এলাকার চৌকিদার ও জনতা আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দিয়েছে। অন্যান্যরা ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে আজিজনগর ইউপি চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন বলেন, আমি বিষয়টি শুনেছি। ঘটনাস্থলে আজিজনগর পুলিশ ক্যাম্প থেকে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। আব্দুল করিমকে পুলিশের হাতে সোর্পদ করেছি।

আজিজনগর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ হুমায়ন কবির বলেন, উক্ত বিষয়ে ক্ষতিগ্রস্থরা লামা থানায় গিয়েছে। মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Share:

আপনার মতামত প্রদান করুন ::

error: কপি করা নিষেধ !!