তারিখ: মঙ্গলবার, ১৮ই জুন, ২০১৯ ইং, ৪ঠা আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Share:

রামুর রশিদনগরের উল্টাখালী এলাকা থেকে নজিবুল আলম (৩২) নামের এক যুবককে তুলে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
বুধবার (৯ জানুয়ারী) দিবাগত রাত ২টার দিকে নিজ বসতবাড়ী থেকে তাকে অজ্ঞাতনামা লোকজন তুলে নিয়ে গেছে বলে জানা গেছে। নজিবুল আলম ওই এলাকার মৃত মকতুল হোছনের ছেলে। তার বিরুদ্ধে ডাকাতির অভিযোগে মামলা আছে বলে জানা গেছে।
ভিকটিমের ভাই নুরুল হাকিম অভিযোগ করেছেন, গভীর রাতে পুলিশের পোষাক পরিহিত কিছু লোক বাড়ীর ভেতরে ঢুকে নজিবুল আলমকে তুলে নিয়ে যায়। পরে রামু থানায় যোগাযোগ করে হদিস মেলেনি।
এ প্রসঙ্গে জানতে রামু থানার ওসি মোহাম্মদ আবুল মনসুরকে ১০ জানুয়ারী বিকাল ৫.৫০ টার দিকে ফোন করলে তিনি অভিযানের স্বীকৃতি দিলেও কোন আসামীকে গ্রেফতার করা হয়েছে তার সঠিক তথ্য জানাতে পারেননি। তবে, ডাকাতি মামলায় একজন আসামী গ্রেফতারের কথা প্রতিবেদককে জানিয়েছেন।
এদিকে, নজিবুল আলমের সন্ধানে পরিবারের সদস্যরা কক্সবাজার সদর মডেল থানা, ঈদগাঁও পুলিশ তদন্তকেন্দ্রসহ বিভিন্ন জায়গায় খোঁজখবর নেয়। বৃহস্পতিবার (১০ জানুয়ারী) দিবাগত রাত সাড়ে ৯টা পর্যন্ত কোন হদিস পাননি।
এ প্রসঙ্গে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইকবাল হোসাইনকে ফোন করলে ঘটনার বিষয়ে বিস্তারিত জেনে ব্যবস্থ নেবেন বলে জানান।
এদিকে, নজিবুল আলমকে তুলে নিয়ে যাওয়ার পর থেকে পরিবারের মাঝে উদ্বেগ উৎকণ্ঠা বিরাজ করছে। কান্নার রোল পড়েছে আতœীয়স্বজনদের মাঝে। যে কোন মূল্যে নজিবুল আলমকে ফিরে পেতে চায় পরিবারের সদস্যরা ও এলাকাবাসী।
সুনির্দিষ্ট মামলায় গ্রেফতার করা হলে নজিবুল আলমকে আদালতে সোপর্দ করার অনুরোধ করেছে স্থানীয়রা।

Share:

আপনার মতামত প্রদান করুন ::