শিরোনাম :
বাঁধ মেরামতে স্বস্তি পাচ্ছে কুতুবদিয়ার মানুষ কক্সবাজারে স্মার্ট ফোনের বাজার শুল্কফাঁকিতে আনা অবৈধ মোবাইলের দখলে কক্সবাজারে অর্ধশতাধিক সেবা প্রার্থীকে পুলিশ ক্লিয়ারেন্স সার্টিফিকেট বিতরণ করলেন পুলিশ সুপার রামু থানা পরিদর্শন ও মাস্ক বিতরণ করলেন জেলা পুলিশ সুপার মোঃ হাসানুজ্জামান টেকনাফের শাহপরীর দ্বীপ প্রতিরক্ষা বেড়িবাঁধ পরিদর্শনে পানি সম্পদ সংসদীয় কমিটির সদস্য এমপি শাওন বিবিসি ১০০ নারীর তালিকায় রামুর মেয়ে রিমা সুলতানা রিমু কক্সবাজারে ৫ রেস্টুরেন্টেকে লক্ষাধিক টাকা জরিমানা কক্সবাজারে নারীর পেটে মিলল ৩ হাজার ইয়াবা : ডিএনসি‘র পৃথক অভিযানে আটক-৪ টেকনাফে ২০হাজার ইয়াবা উদ্ধার করল বিজিবি পেকুয়ায় ব্যক্তিগত অর্থায়নে কালভার্ট ও সড়ক সংস্কার
বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০, ০২:১৭ পূর্বাহ্ন

মানুষের ভালো থাকা, সুরক্ষাই মোদী সরকারের লক্ষ্য : অমিত শাহ

প্রতিবেদকের নাম::

প্রকাশ: অক্টোবর ২১, ২০২০ ১২:১৮ পূর্বাহ্ণ | সম্পাদনা: অক্টোবর ২১, ২০২০ ১২:১৮ পূর্বাহ্ণ

মানুষের ভালো থাকা, সুরক্ষাই মোদী সরকারের লক্ষ্য : অমিত শাহ

[ad_1]

নয়াদিল্লী, ২১ অক্টোবর – করোনা আবহে মানুষ যাতে সুস্থ থাকেন, যাতে নিরাপদ থাকেন, সেই চেষ্টাই করে চলেছে কেন্দ্র। মোদী সরকারের প্রধান লক্ষ্য যেন মানুষ ভালো থাকেন। সেই লক্ষ্যেই কাজ করে চলেছে কেন্দ্রের সরকার। এমনই মন্তব্য কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের।

এদিন শাহ বলেন, এক ঐক্যবদ্ধ ভারতই পারবে করোনার মত ভাইরাসের মোকাবিলা করে এই অসম যুদ্ধ জয় করতে। কেন্দ্র সরকার সেই চেষ্টাই করে চলেছে।

হিন্দিতে ট্যুইট করে অমিত শাহ বলেন এই উৎসবের মরসুমে প্রত্যেককে সতর্ক থাকতে হবে। কেন্দ্র যেভাবে চেষ্টা করছে প্রত্যেককে সুস্থ রাখার, সেই দায়িত্ব প্রত্যেক ব্যক্তিরও। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী প্রত্যেকের কাছে আবেদন জানান ঘরে থাকার জন্য। যতদিন না করোনার ভ্যাকসিন বের হচ্ছে, ততদিন পর্যন্ত সাবধানে থাকার আবেদন জানিয়েছেন তিনি।

আরও পড়ুন : তুমুল লড়াই করে ৪ প্রদেশের ২৪ গ্রামে পতাকা উড়াল আজারবাইজান

এদিন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন ভ্যাকসিন না আসা পর্যন্ত গাফিলতি নয়৷ জাতির উদ্দেশ্যে দেওয়া ভাষণে মোদী বলেন আমাদের দেশের বিজ্ঞানীরা প্রাণপণ লড়ছেন৷ অনেকগুলি ভ্যাকসিনের কাজ চলছে দেশে৷ বহু দেশ ভ্যাকসিন আবিষ্কারের জন্য কাজ করছেন৷ ভ্যাকসিন এলেই তা দ্রুত বন্টন করা হবে৷ প্রত্যেক নাগরিক যাতে ভ্যাক্সিন পায়, তার জন্য সবরকমের চেষ্টা চলছে৷ তাই ভ্যাকসিন না আসা পর্যন্ত বিধি নিষেধে কোনও গাফিলতি নয়৷

কেন্দ্রীয় সরকার প্রস্তাবিত প্যানেল মনে করছেন, আগামী ফেব্রুয়ারি মাসের মধ্যে দেশের ৫০ শতাংশ লোক করোনা আক্রান্ত হবেন৷ অর্থাৎ দেশের ১.৩ বিলিয়ন মানুষ সংক্রমিত হতে পারেন৷ এই পরিস্থিতিতে প্যানেলের সদস্যরা জানান, ফেব্রুয়ারি মাসের মধ্যে দেশের ১.৩ বিলিয়ন মানুষ করোনা আক্রান্ত হবেন।

এখনও পর্যন্ত গোটা দেশে মোট ৭.৫৫ মিলিয়ন মানুষ করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। মোট আক্রান্তের সংখ্যা দিয়ে বিচার করলে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পরেই ভারতের স্থান। প্যানেলের দাবি এখনও পর্যন্ত দেশের ৩০ শতাংশ মানুষ করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। ফেব্রুয়ারির মধ্যেই সেই হার ৫০ শতাংশে গিয়ে পৌঁছবে।

সুত্র : কলকাতা ২৪x৭
এন এ/ ২১ অক্টোবর



[ad_2]

কক্সবাজার পোস্ট.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কক্সবাজার পোস্ট সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ
এই জাতীয় আরো খবর::