শিরোনাম ::
উখিয়ায় মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার রোধকল্পে কর্মশালা অনুষ্ঠিত সামাজিক সংহতি ও শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত উখিয়ার রাজা পালং মাদ্রসা দাখিল পরীক্ষা কেন্দ্রে নানা অভিযোগ, তদন্ত কমিটি গঠিত মুক্তি কক্সবাজারের উদ্যোগে উখিয়ায় নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধ বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত ফ্রেন্ডশিপের প্রশিক্ষণে চ্যাম্পিয়ন ভালুকিয়া পালং উচ্চ বিদ্যালয়ের নারী ফুটবল টিমকে সংবর্ধনা উখিয়ায় মাদক প্রতিরোধ ও অপরাধ দমনে কমিউনিটি পুলিশিং সমাবেশ অনুষ্ঠিত একসঙ্গে ৪ সন্তান জন্ম দিলেন মহেশখালীর এক গৃহবধূ! বান্দরবানের দুর্গম অঞ্চলে ঝরে পড়া শিশুদের জন্য উদ্বোধন শিশু প্রতিভা বিকাশ কেন্দ্রের বান্দরবান দুই শতাধিক প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর মাঝে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প উখিয়ায় পালস’র উদ্যোগে বিশ্ব শান্তি দিবস পালিত
বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১০:২২ অপরাহ্ন
নোটিশ::
কক্সবাজার পোস্ট ডটকমে আপনাকে স্বাগতম..

প্রদীপের বিরুদ্ধে তিন আয়কর কর্মকর্তার সাক্ষ্য

প্রতিবেদকের নাম:
আপডেট: সোমবার, ৪ এপ্রিল, ২০২২

অবৈধ সম্পদ অর্জন মামলায় টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশের বিরুদ্ধে তিন আয়কর কর্মকর্তা সাক্ষ্য দিয়েছেন। তারা হলেন, হারেছ আহমেদ, শওকত আলী এবং আবুল কালাম।

আজ সোমবার চট্টগ্রামের বিভাগীয় বিশেষ জজ আদালতের বিচারক মুন্সী আব্দুল মজিদ এ তিনজনের সাক্ষ্যগ্রহণ করেন। দুদক পিপি মাহমুদুল হক আজাদীকে বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এ তিনজন আগেও সাক্ষ্য দিয়েছিলেন। আজকে তাদেরকে আসামি পক্ষ জেরা করেছে। এর মাধ্যমে এ তিনজনের সাক্ষ্যগ্রহণ কার্যক্রম শেষ হয়েছে।

পিপি বলেন, প্রদীপের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ কার্যক্রম স্থগিত চেয়ে উচ্চ আদালতে একটি আবেদন করেছিলেন প্রদীপের আইনজীবী। কিন্তু সম্প্রতি তারা উক্ত আবেদনটি নট প্রেস করেছে এবং বিষয়টি আমাদের আদালতকে অবহিত করেন। এরই ধারাবাহিকতায় গত ২১ মার্চ প্রদীপের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ করতে বাধা উঠে যায়।

গত বছরের ১৫ ডিসেম্বর প্রদীপ ও তার স্ত্রী চুমকির বিরুদ্ধে অবৈধ সম্পদ অর্জনের এ মামলায় চার্জ গঠনের মাধ্যমে বিচার শুরুর আদেশ হয়। এর আগে গত বছরের ৭ নভেম্বর মহানগর দায়রা জজ আদালত থেকে প্রদীপ-চুমকির এ মামলা বিভাগীয় বিশেষ জজ আদালতে বিচারের জন্য বদলি করা হয়। তারও আগে গত বছরের ২৮ জুলাই আদালতে চার্জশিট দাখিল হয়। যেখানে ২৯ জনকে সাক্ষী রাখা হয়।


আরো খবর: