শনিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৩:১৬ অপরাহ্ন

পেকুয়ায় চাকুরী গেল ১৭ শিক্ষকের, সুপার টেকনাফে বদলী

প্রতিবেদকের নাম::

প্রকাশ: জুন ১, ২০১৮ ১০:৫৮ পূর্বাহ্ণ | সম্পাদনা: জুন ১, ২০১৮ ১০:৫৮ পূর্বাহ্ণ

নাজিম উদ্দিন, পেকুয়া ::
পেকুয়ায় চাকুরীচ্যুত হল ১৭ শিক্ষকের। ইসলামিক রিসার্স সেন্টার পেকুয়ার সুপারভাইজার নুরুল ইসলাম সরকারকে টেকনাফ উপজেলায় বদলী করা হয়েছে। সহজ কোরআন শিক্ষা ও প্রাক প্রাথমিক শিক্ষা কার্যক্রম ইসলামিক রিসার্স সেন্টার পেকুয়ার আওতাধীন বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্টানের ১৭ জন শিক্ষককে চাকুরী থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে। ১ জুন এ সম্পর্কিত আদেশ কার্যকর করা হয়েছে। ইসলামিক ফাউন্ডেশন উপ-পরিচালক খাজা মোহাম্মদ মিয়াজী, সহকারী উপপরিচালক কক্সবাজার ছরওয়ার আকবর এ সম্পর্কিত তথ্য নিশ্চিত করে। প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষা কার্যক্রমে ইসলামিক রিসার্স সেন্টার পেকুয়ায় অচলাবস্থা বিরাজ করছিল। নুরুল ইসলাম সরকার জামায়াতি বলয় তৈরী করে এ কার্যক্রমকে স্থমিত করে দেয়। এমনকি গত ১ মাস আগে কক্সবাজার নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইবুনালে পেকুয়ার ওই সুপারের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানি মামলা রুজু হয়। জন্নাতুল ফেরদৌস নামের এক শিক্ষিকা তার বিরুদ্ধে মামলা রুজু করে। নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালের বিচারক ভিকটিমের নালিশি অভিযোগ আমলে নেয়। আর্জিতে ওই শিক্ষিকা জানায়, তিনি প্রাক প্রাথমিক শিক্ষা উপকরন ও পাঠ্যপুস্তক সংগ্রহ করতে পেকুয়ায় ইসলামিক রিসার্স সেন্টার এর সুপারভাইজারের কার্যালয়ে যায়। এ সময় নুরুল ইসলাম সরকার তাকে একা তার কক্ষে নিয়ে যায়। অপ্রাসংগিক কথাবার্তা বলছিলেন। এক পর্যায়ে যৌন উত্তেজক বাক্য ছুড়ে। এ সময় তাকে যৌন হয়রানির চেষ্টা চালায়। জন্নাতুল ফেরদৌস ইসলামিক রিসার্স সেন্টার পেকুয়ার অধীনে প্রাক প্রাথমিক শিক্ষা কার্যক্রমে সম্পৃক্ত ছিলেন। তিনি টইটং ইউনিয়নের জানআলীমোড়া কেন্দ্রে শিক্ষকতা করতেন। ওই মামলা সহ নানাবিধ অভিযোগ উত্তাপিত হয়। এমনকি শিক্ষক নিয়োগ ও কার্যক্রম পরিচালনায় নুরুল ইসলাম সরকার যথেষ্ট বিতর্কিত ছিলেন। ইসলামিক ফাউন্ডেশন পেকুয়ার এ অচলাবস্থা নিরসনে ক্ষমতাসীন দল আ’লীগ এর জেলা, উপজেলা পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ তার অপসারন দাবীতে সর্বোচ্চ পর্যায়ে লিখিত সুপারিশ জানায়। এর প্রেক্ষিতে ইসলামিক রিসার্স সেন্টার পেকুয়া থেকে নুরুল ইসলাম সরকারকে পেকুয়া থেকে বদলী করা হয়। সুত্র জানায়, ১ জুন থেকে তাকে টেকনাফে বদলী করা হয়েছে। টেকনাফের দায়িত্বে ছিলেন মোহাম্মদ আবু বক্কর রফিক। তিনি পেকুয়ায় দায়িত্ব পালন করবেন। অপরদিকে সহজ কোরআন শিক্ষা ও প্রাক প্রাথমিক শিক্ষা কার্যক্রম ওই প্রতিষ্টানের আওতায় পেকুয়ায় ১৭ জন শিক্ষককে চাকুরী থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে। ইসলামি রিসার্স সেন্টার পেকুয়ার সাধারন কেয়ারটেকার অধ্যক্ষ শফিকুর রহমান চৌধুরী জানায়, এ ১৭ জন শিক্ষককে চাকুরী থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে। তারা নৈতিক স্খলন ও শৃংখলা পরিপন্থী কাজে লিপ্ত ছিল। চাকুরীচ্যুত শিক্ষকরা হলেন আয়াত উল্লাহ কেন্দ্র: নন্দীরপাড়া, শফিউল আলম নুরী মৌলভী পাড়া, মোহাম্মদ জোবাইর, জামাল হোসাইন সাইদ আনসারী-বটতলীয়াপাড়া, জহিরুল ইসলাম-বাগগুজারা, আহমদ কবির-দশেরঘোনা, আমির উল্লাহ-মগকাটা, মোহাম্মদ ইসমাইল-উজানটিয়া, ইয়াসমিন সোলতানা-টেকপাড়া, উম্মে কুলসুম-বারাইয়াকাটা, তসলিমা বেগম-নবাগত, আবদু ছমদ-সুন্দরীপাড়া, শাহ আলম-জানআলী মোড়া, নুরুল ইসলাম-উজানটিয়া, মোজাদ্দেক-সিকদারপাড়াসহ ১৭ জন। নুরুল ইসলাম সরকারের স্ত্রী বেগম সরকার ঢাকার তামবিরুল মিল্লাত মাদ্রাসার শিক্ষক। তিনি জামায়াতের সহযোগী সংগঠন মহিলা সংস্থার রুকন বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে। সরকার বিরোধী নানান কার্যক্রমে গোয়েন্দা সংস্থার নজরে আসে এ প্রতিষ্টান। বর্তমানে কাল তালিকাভূক্ত সেটি।

কক্সবাজার পোস্ট.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কক্সবাজার পোস্ট সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ
এই জাতীয় আরো খবর::