শিরোনাম :
উখিয়ায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের নিরাপদ ব্যবহারে হেলপ কক্সবাজারের সচেতনতা ক্যাম্পেইন চকরিয়ায় যাত্রীবেশে বাসে ডাকাতির ঘটনায় ৬ জন গ্রেফতার উখিয়ায় অবৈধ করাতকল উচ্ছেদ, বিপুল পরিমাণ কাঠ জব্দ কক্সবাজার কারাগারে কয়েদির আত্মহত্যা মছ্লেহ উদ্দিন চৌধুরীর মৃত্যুতে টিএমসি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের শোক পেকুয়ার যুবক আফ্রিকায় ডাকাতের গুলিতে নিহত টেকনাফে ৬টি সোনার বার ও মিয়ানমারের ৯৫০ কিয়াট মুদ্রা উদ্ধার চকরিয়ার ডুলাহাজারায় পাহাড় কেটে মাটি লুট : দুই ডাম্পার জব্দ টেকনাফ-সেন্টমাটিন নৌপথ বাংলা চ্যানেল পাড়ি দিবে ৪৩ সাঁতারু পেকুয়ায় থানার ৫’শ মিটারের মধ্যে দুর্ধর্ষ ডাকাতি : অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে টাকা লুট
বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ০৬:৩৯ পূর্বাহ্ন

পশ্চিমবঙ্গে কমল সক্রিয় রোগী, নতুন সংক্রমণ নামল ৪ হাজারের নীচে

প্রতিবেদকের নাম::

প্রকাশ: অক্টোবর ২৭, ২০২০ ৫:২৬ অপরাহ্ণ | সম্পাদনা: অক্টোবর ২৭, ২০২০ ৭:৪৬ অপরাহ্ণ

পশ্চিমবঙ্গে কমল সক্রিয় রোগী, নতুন সংক্রমণ নামল ৪ হাজারের নীচে

[ad_1]

কলকাতা, ২৭ অক্টোবর- একাদশীর দিন রাজ্যের করোনা-গ্রাফে অনেকটাই স্বস্তির ছবি ধরা পড়ল। বেশ কয়েকটা দিন পর রাজ্যে নতুন সংক্রমণ নেমে এল চার হাজারের নীচে। আরও বেশি স্বস্তির খবর হল যে দেড় মাস পর রাজ্যে সক্রিয় রোগী কমল। মৃতের সংখ্যায় কিছুটা লাগাম পড়ার পাশাপাশি সুস্থতার হার বেশ কিছুটা বেড়েছে।

রাজ্যের করোনা-তথ্য
গত ২৪ ঘণ্টায় পশ্চিমবঙ্গে নতুন করে কোভিডে (Covid 19) আক্রান্ত হয়েছেন ৩,৯৫৭ জন। এর ফলে রাজ্যে মোট কোভিডরোগীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৩ লক্ষ ৫৭ হাজার ৭৭৯ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৩,৯১৭ জন। এর ফলে এখনও পর্যন্ত রাজ্যে মোট কোভিডজয়ীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৩ লক্ষ ১৪ হাজার ৩। নতুন করে আরও ৫৮ জনের মৃত্যু হওয়ায় রাজ্যে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৬,৬০৪। রাজ্যে মৃত্যুহার সামান্য কমে বর্তমানে ১.৮৪ শতাংশে রয়েছে।

রাজ্যে বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৩৭ হাজার ১৭২ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ১৮ জন সক্রিয় রোগী কমেছে রাজ্যে। সুস্থতার হার রাজ্যে বর্তমানে রয়েছে ৮৭.৭৬ শতাংশ।

দৈনিক সংক্রমণের হার কমল
বেশ কয়েকটা দিন পর রাজ্যে দৈনিক সংক্রমণের হার কমেছে। যদিও, সামগ্রিক সংক্রমণের হার বেড়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে ৪২ হাজার ১০৮টি নমুনার পরীক্ষা হয়েছে। এর বিচারে দেখতে গেলে সংক্রমণের হার ছিল ৯.৩৯ শতাংশ।

রাজ্যে এখনও পর্যন্ত মোট ৪৩ লক্ষ ৮২ হাজার ৬৭৮টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এর বিপরীতে আক্রান্ত হয়েছেন ৮.১৬ শতাংশ মানুষ।

হাসপাতাল শয্যা-তথ্য
সুস্থতা বাড়তে থাকায় হাসপাতালের শয্যা কিন্তু ধীরে ধীরে বাড়ছে রাজ্যে। বর্তমানে রাজ্যে সরকারি এবং বেসরকারি মিলিয়ে মোট ৯৩টি হাসপাতালে কোভিড চিকিৎসা হচ্ছে। রাজ্য জুড়ে মোট ১২ হাজার ৭৫১টি শয্যা চিকিৎসার জন্য চিহ্নিত রয়েছে। এর মধ্যে ৩৫.৬৩ শতাংশ শয্যা বর্তমানে ভরতি রয়েছে।

কলকাতা, উত্তর ২৪ পরগণায় সক্রিয় রোগী আরও কমল
কলকাতা আর উত্তর ২৪ পরগণার করোনা-পরিস্থিতিতে আরও কিছুটা আশার আলো দেখা গিয়েছে। দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা ন’শোর নীচে নেমে এসেছে। অন্য দিকে বিপুল সংখ্যক মানুষ সুস্থ হওয়ায় দুই জেলাতেও আরও অনেকটাই কমেছে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা।

কলকাতার গত ২৪ ঘণ্টায় ৮৮৪ জন আর উত্তর ২৪ পরগণায় ৮৭৫ জন নতুন করে কোভিডে আক্রান্ত হয়েছেন। এই দুই জেলায় যথাক্রমে ৯৮৭ আর ৯৮৪ জন সুস্থ হয়েছেন। কলকাতায় ১৪ আর উত্তর ২৪ পরগণায় ১১ জনের মৃত্যু হয়েছে।

কলকাতায় এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৭৭ হাজার ৬৯২ জন। উত্তর ২৪ পরগণায় মোট আক্রান্ত ৭২ হাজার ৭০৬। কলকাতায় বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৭,১৩৬ জন এবং উত্তর ২৪ পরগণায় ৬,৯৭৩।

কলকাতা আর উত্তর ২৪ পরগণায় বর্তমানে সুস্থ হয়ে ওঠা মানুষের সংখ্যা যথাক্রমে ৬৮ হাজার ৪১৭ এবং ৬৪ হাজার ২২৫।

পড়শি তিন জেলা স্থিতিশীল
উত্তর ২৪ পরগণা বাদে কলকাতার পড়শি তিন জেলায় কোভিড পরিস্থিতির কোনো পরিবর্তনই হয়নি। ওই তিন জেলায় নতুন আক্রান্তের ছবিটা যেমন আগে ছিল, এখনও সে রকমই রয়েছে।

দক্ষিণ ২৪ পরগণায় নতুন করে ২৪৯ জন আক্রান্ত হয়েছেন। তবে এই জেলায় সুস্থ হয়েছেন মাত্র ২৬ জন। হাওড়ায় নতুন করে ১৫১ জন আক্রান্ত হয়েছেন, সুস্থ হয়েছেন ১৪৫ জন। অন্য দিকে হুগলিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১৭৪ জন। সুস্থ হয়েছেন ১৮০ জন।

সাত জেলায় আক্রান্ত শতাধিক
গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যের আরও সাতটি জেলায় নতুন করে শতাধিক মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। সব থেকে বেশি আক্রান্তের খোঁজ মিলেছে পশ্চিম মেদিনীপুরে (১৮২)।

এর পর রয়েছে, নদিয়া (১৭১), পূর্ব মেদিনীপুর (১৬০), দার্জিলিং (১৩২), মালদা (১২৯), পশ্চিম বর্ধমান (১২৮), পূর্ব বর্ধমান (১২৭)।

কালিম্পংয়ে আক্রান্ত হননি, সক্রিয় রোগী কমল ১১ জেলায়
দীর্ঘদিন পর রাজ্যে এই কোনো জেলা থেকে কোনো রোগীর সন্ধান মিলল না। জেলাটি হল কালিম্পং। রাজ্যে সব থেকে কম কোভিড আক্রান্ত, এই জেলাতেই রয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় এই জেলার ১৫ জন কোভিডরোগী সুস্থ হলেও কেউ নতুন করে আক্রান্ত হননি।

গত ২৪ ঘণ্টায় ১১টা জেলায় সক্রিয় রোগী কমেছে। কলকাতা আর উত্তর ২৪ পরগণা ছাড়াও এই জেলাগুলি হল কোচবিহার, কালিম্পং, জলপাইগুড়ি, দক্ষিণ দিনাজপুর, মুর্শিদাবাদ, নদিয়া, বীরভূম, পশ্চিম মেদিনীপুর এবং হুগলি।

সূত্র: খবর অনলাইন

আর/০৮:১৪/২৭ অক্টোবর



[ad_2]

কক্সবাজার পোস্ট.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কক্সবাজার পোস্ট সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ
এই জাতীয় আরো খবর::