শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৩:২৩ পূর্বাহ্ন

চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে ১০ বছর ধরে চলছে লাইসেন্স বিহীন বাস

প্রতিবেদকের নাম::

প্রকাশ: এপ্রিল ১২, ২০১৯ ৫:১২ পূর্বাহ্ণ | সম্পাদনা: এপ্রিল ১২, ২০১৯ ৫:১২ পূর্বাহ্ণ

মোঃ নিজাম উদ্দিন, চকরিয়া:

লাইসেন্স বিহীন মহাসড়কে বাস চলাচল করছে ১০ বছর ধরে, এমনি এক চাঞ্চল্যকর তথ্য পাওয়া গেছে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়ায়। অপরদিকে মহাসড়কে যাত্রী হয়রানী, বেপরোয়া বাস চলাচল, লাইসেন্স ও ফিটনেস বিহীন যানবাহনের অভিযোগ দীর্ঘ সময় ধরে। কিন্তু কাগজপত্র তল্লাশি নামের আইওয়াশ অভিযান চালালেও দৃশ্যমান কার্যকরী পদক্ষেপ নিচ্ছে না সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।
অনুসন্ধানে জানা গেছে, গেল কয়েক দিনে চকরিয়ার মালুমঘাট হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়িতে শ্যামলি (ঢাকা মেট্রো-ব ১৪-০৮৬২) ও মাতামুহুরি (চট্টমেট্রো-ব ০৫-০০৯৪) নামের দুটি বাস আটক করে। পুলিশের দাবী মাতামুহুরির প্রায় ১০ বছর ও শ্যামলী পরিবহন ৫ বছর ধরে মহাসড়কে চলছিল বিনা লাইসেন্সে। কয়েকদিন আগে তাদের আওতাধীন এলাকায় অভিযানকালে ধরা পড়ে বাসগুলো। এ বাস ছাড়িয়ে নিতে মালিক পক্ষ থেকে চলছে নানামুখী তদবির। কিন্তু হাইওয়ে পুলিশের পক্ষ থেকে গতকাল পর্যন্ত কোনরূপ সাড়া মিলেনি। তবে এ নিয়ে কৌতূহল থেকে যায় পরবর্তী পদক্ষেপ দেখার।

অভ্যন্তরীন সুত্রে জানাগেছে, চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে নিয়মিত চলাচলরত ৯০ শতাংশ যানবাহনের লাইসেন্স নেই। নেই কোনপ্রকার ফিটনেস সার্টিফিকেট। তারপরও কিভাবে এসব যানবাহন মহাসড়কে চলছে তা রহস্যই থেকে যায়। একাধিক জন বাসযাত্রীর সাথে কথা বলে জানা যায়, চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে লাইসেন্স বিহীন অদক্ষ চালকরা যানবাহন চালাচ্ছে বেপরোয়া গতিতে। মহাসড়কে লাইসেন্স ও ফিটনেস বিহীন যানবাহনে দুর্ঘটনা ঘটাচ্ছে দেদারসে। ফলে ঝরছে তাজা প্রাণ আর বাড়ছে স্বজন হারার আহাজারি। সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের কঠোর নজরদারিতে মহাসড়কে দুর্ঘটনা কমিয়ে আনা সম্ভব বলে মনে করেন ভুক্তভোগীরা।
জানতে চাইলে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে চলাচলরত শ্যামলী পরিবহনের চকরিয়া ইনচার্জ পারুল বলেন, তার ওই গাড়ি পাঁচ বছর ধরে মহাসড়কে মেয়াদোত্তীর্ণ লাইসেন্সে চলছে। শুধু শ্যামলী নয় এই মহাসড়কে সর্বাধিক গাড়ি চলছে বিনা কাগজপত্রে, কিন্তু তাদের করছেনা কেন!
এ ব্যাপারে মালুমঘাট হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ পুলিশ পরিদর্শক আলমগীর হোসেন জানায়, কাগজপত্র না থাকার অভিযোগে মহাসড়ক থেকে শ্যামলী ও মাতামুহুরি পরিবহনের দুটি বাস আটক করা হয়েছে। বাস দুটি ২০১৫ ও ২০১০ সাল থেকে মহাসড়কে চলছে কোনপ্রকার লাইসেন্সে ছাড়া। এখন থেকে কাগজপত্র সঠিক না থাকলে কোন যানবাহনকে ছাড় দেওয়া হবেনা।

কক্সবাজার পোস্ট.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কক্সবাজার পোস্ট সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ
এই জাতীয় আরো খবর::