শিরোনাম ::
উখিয়ায় মাদকদ্রব্যের অপব্যবহার রোধকল্পে কর্মশালা অনুষ্ঠিত সামাজিক সংহতি ও শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত উখিয়ার রাজা পালং মাদ্রসা দাখিল পরীক্ষা কেন্দ্রে নানা অভিযোগ, তদন্ত কমিটি গঠিত মুক্তি কক্সবাজারের উদ্যোগে উখিয়ায় নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধ বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত ফ্রেন্ডশিপের প্রশিক্ষণে চ্যাম্পিয়ন ভালুকিয়া পালং উচ্চ বিদ্যালয়ের নারী ফুটবল টিমকে সংবর্ধনা উখিয়ায় মাদক প্রতিরোধ ও অপরাধ দমনে কমিউনিটি পুলিশিং সমাবেশ অনুষ্ঠিত একসঙ্গে ৪ সন্তান জন্ম দিলেন মহেশখালীর এক গৃহবধূ! বান্দরবানের দুর্গম অঞ্চলে ঝরে পড়া শিশুদের জন্য উদ্বোধন শিশু প্রতিভা বিকাশ কেন্দ্রের বান্দরবান দুই শতাধিক প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর মাঝে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প উখিয়ায় পালস’র উদ্যোগে বিশ্ব শান্তি দিবস পালিত
শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২, ০৮:৩৫ অপরাহ্ন
নোটিশ::
কক্সবাজার পোস্ট ডটকমে আপনাকে স্বাগতম..

চকরিয়ায় সড়কে ৫ ভাইয়ের মৃত্যু : সেই পিকআপ চালক সাইফুলকে ৩দিনের রিমান্ডে

প্রতিবেদকের নাম:
আপডেট: রবিবার, ১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২২

এম.জিয়াবুল হক,চকরিয়া::

চকরিয়ায় পিকআপ চাপায় পাঁচ ভাই নিহতের ঘটনায় চালক সাইফুল ইসলামকে রিমান্ডে নিয়েছে পুলিশ। রোববার (১৩ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে সাইফুলকে চকরিয়া সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে উপস্থাপন করেন রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মালুমঘাট হাইওয়ে থানা পুলিশের এসআই আবুল হোসেন।

এ সময় তদন্ত কর্মকর্তা এসআই আবুল হোসেন অধিকতর তদন্তের স্বার্থে আসামী সাইফুল ইসলামের আদালতের কাছে সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে আবেদন করেন। পরে সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিজ্ঞ বিচারক রাজিব কুমার দেব গ্রেফতারকৃত পিকআপ চালক সাইফুল ইসলামের তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। পিকআপ চালক সাইফুল ইসলাম (৩০) বান্দরবান জেলার লামা উপজেলার মো. আলী জাফরের ছেলে।

চকরিয়া সিনিয়র জুডিসিয়াল আদালতের আইনজীবি অ্যাডভোকেট ওমর ফারুক বলেন, ‘চকরিয়া উপজেলার মালুমঘাট এলাকায় সবজি বোঝাই একটি দ্রুতগতির পিকআপ চাপায় পাঁচ সহোদর নিহত হন। এ সময় আরো দুই সহোদর ও এক বোন গুরুতর আহত হন। এ ঘটনার পর থেকে পিকআপ চালক সাইফুল ইসলাম পালিয়ে যায়। পরে র‌্যাবের একটি টিম তাকে ঢাকা থেকে আটক করে মামলার তদন্তকারী কমকর্তার কাছে হস্তান্তর করেন।

গতকাল রোববার দুপুরে চালক সাইফুল ইসলামকে আদালতে নিয়ে আসেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই আবুল হোসেন। এ সময় তদন্ত কর্মকর্তা চালক সাইফুল ইসলামের সাতদিনের রিমান্ডের জন্য আদালতের কাছে আবেদন করলে আদালতের বিচারক রাজিব কুমার দেব তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। আদালতে আসামী সাইফুল ইসলামের পক্ষে কোনো আইনজীবি তার জামিনের জন্য আবেদন করেননি।’

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও মালুমঘাট হাইওয়ে থানার এসআই (উপপরিদর্শক) আবুল হোসেন বলেন, ‘পিকআপ চাপায় পাঁচ সহোদরের মৃত্যুর ঘটনায় পিকআপ চালক সাইফুল ইসলামকে রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে। এটি নিছক দূর্ঘটনা নাকি পরিকল্পিত হত্যা তা খতিয়ে দেখতেই মুলত তাকে রিমান্ডে নেয়া হয়েছে।’

প্রসঙ্গত: গত ৮ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের চকরিয়া উপজেলার মালুমঘাট নার্সারি এলাকায় সবজি বোঝাই দ্রুতগতির একটি পিকআপের চাপায় পাঁচ ভাই নিহত এবং আরও দুই ভাই ও এক বোন গুরুতর আহত হন। এদের মধ্যে আহত রক্তিম সুশীল গুরুতর অবস্থায় চট্টগ্রামের একটি হাসপাতালে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। নিহতদের বাবা প্রয়াত ডা. সুরেশ চন্দ্র সুশীলের শ্রাদ্ধ অনুষ্ঠানের পূর্বে ক্ষুদান্ন দান করতে গিয়ে তারা এই দুর্ঘটনার শিকার হন।


আরো খবর: