মঙ্গলবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৩:০৯ পূর্বাহ্ন

কক্সবাজার সদর হাসপাতালকে ৫’শ শয্যা উন্নীত করণে সহায়তা করবে সৌদি সরকার

প্রতিবেদকের নাম::

প্রকাশ: এপ্রিল ১২, ২০১৮ ৮:২৪ অপরাহ্ণ | সম্পাদনা: এপ্রিল ১২, ২০১৮ ৮:২৫ অপরাহ্ণ

সাইফুল ইসলাম ::

কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালকে ২৫০ থেকে ৫০০ শয্যা উন্নীত করণে সহায়তা করবে সৌদি সরকার। মিয়নমার সরকারের বর্বর নির্যাতনের মুখে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের প্রথম থেকে মানবিক সহায়তা দিয়ে আসছে এ সরকার।

এ পর্যন্ত আমরা প্রায় ২০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার সহায়তা দেওয়া হয়েছে। সেটা আরো বড় আকারে করা হবে। এই সহায়তা সব সময় চালু থাকবে। একই সঙ্গে রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর সঙ্গে স্থানীয় জনগণের স্বাস্থ্য সেবার মান উন্নয়নের জন্য কাজ করবে । একই সঙ্গে বিভিন্ন যন্ত্রপাতি প্রদান করা হবে।

বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল পরিদর্শন শেষে এক মতবিনিময় সভায় এসব কথা বলেন, সৌদি আরবের সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও সৌদি আরবের কিং সালমান রিলিফ অ্যান্ড হিউমেনিটেরিয়ান সেন্টারের সুপারভাইজার জেনারেল ড. আবদুল্লাহ আল রাবিয়াহ।

তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশ সৌদি আরবের অনেক পুরোনো বন্ধু। বাংলাদেশের সঙ্গে আমাদের অনেক বিষয়ে দীর্ঘ দিনের সুসম্পর্ক রয়েছে। বর্তমানে এত বিপুল সংখ্যক রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে তাদের ভরণ-পোষণ এবং চিকিৎসা করিয়ে বাংলাদেশ বিশ্বের কাছে সম্মানের জায়গা করে নিয়েছে। তাই সৌদি আরবের পক্ষ থেকে সব ধরনের সহায়তা অব্যাহত থাকবে।

বিশেষ করে স্বাস্থ্য খাতে আমরা অংশীদারিত্ব মূলক ভাবে কাজ করবো। যেমন জরুরি ঔষধপত্র বৃদ্ধি, রান্নাঘর সংস্কার, খাদ্যের বরাদ্দ বৃদ্ধি ও জনবল বৃদ্ধির সহায়তা করা হবে।

এর আগে একইদিন সকাল ১০টায় কক্সবাজার সদর হাসপাতালে আসেন ড. রাবিয়াহ। তিনি প্রথমে হাসপাতালের রান্নাঘর, রোহিঙ্গাদের চিকিৎসার স্থান ও বিভিন্ন ওয়ার্ড ঘুরে দেখেন।

এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন ডাব্লিএইচও’র এসইও কর্মকর্তা ডা. বার্ডন জন রানা, কক্সবাজার সদর হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. পুচনু, সহকারী পরিচালক ডা. সোলতান আহাম্মদ সিরাজী, ডা. কামাল উদ্দিন, আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. শাহীন আবদুর রহমান সহ ডাক্তার, নার্স ও কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা।

কক্সবাজার পোস্ট.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কক্সবাজার পোস্ট সব ধরনের আলোচনা-সমালোচনা সাদরে গ্রহণ ও উৎসাহিত করে। অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য পরিহার করুন। এটা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ
এই জাতীয় আরো খবর::